Home / পত্রসম্ভার / প্রিয়, সিনথিয়া

প্রিয়, সিনথিয়া

প্রিয়,
সিনথিয়া (অপ্সরীর ছোঁয়া)

নিয়মিত আর লিখা হয়ে ওঠে না তোমায়, ইচ্ছে গুলিতে কেমন যেন জং ধরা ভাব এসেছে,

সামান্য চাকুরীতে দিন ভর ডিউটি সন্ধ্যে হলে ঘরে ফেরা ক্লান্ত শ্রান্ত হয়ে বিছানায় গা এলিয়ে দেয়া এভাবেই ঘুম এরপর সকালে সেই অফিস! জীবনটা বড্ড যান্ত্রিক হয়ে গেছে বুঝলে।

কি করবো বলো ভাগ্যের চাকা ঘুড়াতে কলের চাকাতো ঘুরাতেই হয় শক্ত হাতে!

সেই কবে কলম ছেড়েছি মোবাইলের কি-বোর্ডটাও আজকাল ধরতে ইচ্ছে করে না।

তাই বলে ভেবনা ভালোবাসার কোন কমতি আছে, ভালোবাসা গুলি বরং বেড়েই চলছে। কেমন আছো তুমি?,
শীতের রাতে গ্রামে নিশ্চয় কম্বল মুরি দিয়ে ঘুমিয়ে আছো।

আজ কেন যেন ঘুম আসছে না। বড্ড বেশি মনে পরছে তোমায়,সেল ফোন থেকে বার কয়েক কল ও দিলাম রিসিভ করলে না। হয়তো সাইল্যান্ট করে ঘুমিয়ে গেছো।

অথচ কিছুদিন পরেই এই সময়টা আমরা নিজের মতো করে কাটাবো।

মনের মাঝ অনেক গুলি কথা জমে আছে
দেখা হয়না অনেক দিন তাই বলা হয়ে উঠছে না।

শহস্র রজনী নির্ঘুম কাটিয়ে দেব তোমাকে নিয়ে জ্যোৎস্না বিলাসে, কিংবা অন্ধকার রজনীতে জোনাকীর খোজে।
আমাদের প্রেম অনেক কে হিংসায় জর্জরিত করে।
কেউ কেউ শুনে বড্ড অবাক ৮ বছর এতোটা লম্বা সময় আজকাল প্রেম চলে নাকি!

তোমার কথার সুরেই বলি আমরা তো বড্ড সেকেলে, সেই চিঠি চালাচালিতে প্রেমের শুরু চলছে আজ অবদি, চলবে অনন্তকাল, তবুও কিন্তু আমি তোমার কাছে প্রেমিক হয়ে উঠতে পারিনি।

তুমি মাঝে মাঝেই বলো একটু সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে নিজেকে একটু স্মার্ট করতে, তোমার চেষ্টার কমতি নেই৷ ঝগড়াও লাগে।
বাট দিন শেষে আমি যেমন তেমনি।

কেন চেঞ্জ করতে ইচ্ছে করেনা নিজেকে জানো!
সময়ের সাথে তাল মিলাতে গেলে যদি তোমায় হারিয়ে ফেলি!

তবে কথা দিচ্ছে ডিসেম্বরে বিয়ের পর তোমার মনের মতো করে নিজেকে পরিবর্তন করে নেব।
তখন হারানের কোন ভয় থাকবে না,

এখন তো হাজারো ভয় পিছু থেকে তাড়িয়ে বেড়ায় তোমাকে হারিয়ে ফেলার!

নিজ্ব্র যত্ন নাও৷  গ্রামে বড্ড শীত কোন ভাবেই যেন ঠান্ডা না লাগে সেদিকে খেয়াল রাখবে।
আজ তবে রাখছি।

ইতি
তোমার
Sterling de Mamun

Facebook Comments

About Priyo Golpo

Check Also

ভালোবাসা হবে রোজকার ডাল ভাতের মত। বুকের পাঁজরে মিশে থাকবে।

হুমায়ুন ফরিদী – সুবর্ণা মুস্তফা , হুমায়ূন আহমেদ – গুলতেকিন,তাহসান মিথিলার মত সেলেব্রেটিদের প্রেম বিয়ে …

error: Content is protected !!